জলঢাকায় অগ্নিকান্ডে নি:স্ব ১৮ পরিবার পেল মাথা গোঁজার ঠাঁই

0

নীলফামারীর জলঢাকায় সম্প্রতি অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারগুলোর মাঝে উপজেলা প্রশাসন টিন ও নগদ অর্থ বিতরণ করেছে।

বুধবার, ৩ ফেব্রুয়ারি দুপুরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার কার্যালয়ে এই বিতরণ কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হয়।

ক্ষতিগ্রস্থ প্রতি পরিবারকে ছয় হাজার টাকা ও দুই বান্ডিল করে টিন বিতরণ করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মাহবুব হাসান।

সহায়তা পেয়ে আবেগে চোখের পানি ধরে রাখতে পারছিলেন না শচী রানী। চোখ মুছতে মুছতে তিনি বলেন, আমার স্বামী গত দুই বছর আগে কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে কয়লার ট্রাক চাপায় মর্মান্তিকভাবে মৃত্যুবরণ করেন। আমার একটি মেয়ে সন্তান আছে সেও প্রতিবন্ধী।

তিনি জানান, সেসময় বিভিন্নখানে সহায়তা হিসাবে তিন লাখ টাকা পেয়েছি। সে টাকায় ভাগ বসাতে চায় আমার শ্বশুর সুরেশ চন্দ্র। শ্বশুরকে টাকা না দেওয়ায় আমার আর ঠাঁই হয়নি সেখানে। চলে যেতে হয় বাবার বাড়িতে। সেখানে সন্তানের ভবিষ্যতের জন্য দুই লাখ টাকা ব্যাংকে রাখি ও এক লাখ টাকা খরচ করে থাকার আশ্রয় করি। ভাগ্যের নির্মম পরিহাস আগুন আমার সে আশ্রয়ের জায়গাটিও শেষ করে দিয়েছে।

এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা চঞ্চল কুমার ভৌমিক,প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা ময়নুল হক,নির্বাচন কর্মকর্তা উজ্জল হোসেন,ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান রবিউল ইসলাম লিপন,প্রানজিৎ রায় পলাশ,উপ-সহকারী প্রকৌশলী হাফিজুর রহমান প্রমূখ।

উল্লেখ্য, গত ৭জানুয়ারী উপজেলার উত্তর বেরুবন্দ এলাকায় ভয়াবহ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে। এতে ১৮টি পরিবারের ঘরবাড়ী ও গৃহপালিত পশু সম্পুর্ণরূপে পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

জেএম/রাতদিন

লাইক দিয়ে সাথে থাকুন