https://ratdin.news
শেকড়ের খবর সবার আগে...

মিঠাপুকুরে স্ত্রীকে হত্যার পর মরদেহ পুঁতে রেখেছিল স্বামী

রংপুরের মিঠাপুকুরে নিখোঁজ গৃহবধূ হোসনে আরার অর্ধগলিত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ বুধবার, ১৬ সেপ্টেম্বর নিজের বাড়ির পাশে আবাদি জমির মাটি খুঁরে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। পুলিশ ধারণা করছে, গৃহবধূর স্বামী আনারুল ইসলাম স্ত্রীকে হত্যা করে মাটিতে পুঁতে রেখে গা ঢাকা দিয়েছিল। পুলিশ আনারুলকে গ্রেপ্তার করেছে।

পুলিশ জানায়, গত ২৭ জুলাই মিঠাপুকুরের সন্তোষপুর গ্রামের আনারুলের স্ত্রী হোসনে আরা বেগম নিখোঁজ হয়। এরপর ১ সেপ্টেম্বর তার পরিবারের লোকজন থানায় মামলা দায়ের করলে গত মঙ্গলবার রাতে আনারুল পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হয়। যদিও গ্রেপ্তারের আগে পর্যন্ত সে দাবি করেছিল, তার স্ত্রী বাবার বাড়ির কথা বলে বেরিয়ে আর ফিরে আসেনি। এর আগে আনারুলও গা ঢাকা দিয়েছিল।

পারিবারিক কলহের জেরে হোসনে আরাকে হত্যার কথা পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে আনারুল। সে আটকের পর তার দেওয়া তথ্য অনুযায়ী বাড়ির পেছনে আবাদি জমিতে পুঁতে রাখা হোসনে আরা বেগমের অর্ধগলিত মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

মিঠাপুকুর থানার ওসি মো. আমিরুজ্জামান জানান, নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

এবি/রাতদিন

লাইক দিয়ে সাথে থাকুন

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়েছে

RSS
Follow by Email