রাত ৩টায় ফেসবুকে স্ট্যাটাস, সকালে ঘরে ঝুলছিলো বেরোবি ছাত্রের লাশ

ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় (বেরোবি)’র এক ছাত্র। তার আত্মহত্যার কারণ উদঘাটনের চেষ্টা করছে পুলিশ।

বুধবার, ৬ অক্টোবর দিবাগত রাত ৩টায় তিনি ফেসবুকে একটি স্ট্যাস্টাস দেন। স্ট্যাটাসে তিনি লিখেন ‘আই কোয়াইট ফর এভার’। ধারণা করা হচ্ছে, এর পরপরই তিনি আত্মহত্যা করেন।

মৃত ওই শিক্ষার্থীর নাম তানভীর আলম তুষার (২৫)। তিনি বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের অস্টম ব্যাচের ছাত্র।

তানভীরের বাড়ি নগরীর সাহেবগঞ্জ তিন মাথার মোড় এলাকায়। তিনি ওই এলাকার মহসিন আলীর বড় ছেলে।

পারিবারিক সুত্রে জানা গেছে, তুষার অন্য দিনের মতো যথারীতি রাতের বেলা ঘুমিয়ে পড়েন। পরদিন বেলা হলে ঘুম থেকে না উঠায় বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে চাচাতো ভাই সাব্বির আলম তার ঘরের সামনে এসে ডাকতে থাকেন।

অনেক ডাকাডাকির পরও সাড়া না পাওয়ায় ঘরের দরজা ভেঙ্গে ঢুকে দেখেন তুষার গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। পরে পুলিশকে খবর দেয়া হয়।

হারাগাছ মেট্রোপলিটন থানার ওসি শওকত হোসেন জানান, খবর পেয়ে হারাগাছ থানা পুলিশসহ মেট্রোপুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা তুষারের বাড়িতে যায়। আত্মহত্যার কারণ উদ্ঘাটনের চেষ্টা করছে পুলিশ।

সম্প্রতি তার বাবার সাথে কথা কাটাকাটি হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। আত্মহত্যায় অন্য কোন মোটিভ আছে কীনা তা তদন্তসাপেক্ষে জানা যাবে বলে চানিয়েছেন পুুলিশের ওই কর্মকর্তা।

জেএম/রাতদিন

লাইক দিয়ে সাথে থাকুন