বিলাসবহুল জাহাজ এবং ভাসমান সমুদ্র সৈকত!

সমুদ্রের জলরাশি কার না ভালো লাগে? এজন্যই তো ভ্রমন পিপাসু মানুষজনই ছুটে চলে সমুদ্রতীরে। আর তা যদি হয় সমুদ্রের মাঝে ভাসমান! নিরিবিলি আর সবুজে ঘেরা কোন সমুদ্রেরতীর । তাহলে হয়তোবা অনেকেই স্বপ্ন বলবেন এটিকে।

নরওয়ের বিখ্যাত ইন্টিরিয়র ডিজাইন সংস্থা ‘হেরেড ডিজাইন’ ১০৮এম নামের একটি প্রমোদতরী তৈরি করে এমন স্বপ্নকেই যেন বাস্তবে রুপ দিয়েছে। ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম জি নিউজ এমন খবরই প্রকাশ করেছে।

লম্বায় ১০৮ মিটার (প্রায় ৩৫৪ ফুট) এই প্রমোদতরীটি। এটি কৃত্তিম সমুদ্র সৈকত বা সী বিচের সঙ্গে যে কোনো সাধারণ বিচের পার্থক্য হলো এটি মাঝ সমুদ্রে ভাসমান। বিচটি তৈরি করার জন্য জাহাজের পিছন দিকটা নিচু করে সমুদ্রের পানির সঙ্গে মিশিয়ে দেওয়া হয়েছে।

এ সম্পর্কিত আরও খবর...

এই বিলাশবহুল জাহাজে যাত্রীদের বিনোদনের জন্য থাকছে সুইমিং পুল, বাগান, পানশালা, রেস্তোরাঁ, রাজকীয় স্যুট, হেলিপ্যাড। আস্ত একটা সমুদ্র সৈকত বা সী বিচও থাকছে বিনোদনের জন্য ।

এর দোতলায় রয়েছে একটি খোলামেলা সাজানো বাগান, একটি সুইমিং পুল। এই প্রমোদতরীতে যাত্রীদের স্বাচ্ছন্দের জন্য কাঁচে মোড়া বিশাল মাপের একটি হল ঘর আছে আর সেই হল ঘরে রয়েছে পানশালা, রেস্তোরাঁর মতো একাধিক আয়োজন। আছে একটি হেলিপ্যাডও। শুধু কি তাই, ১০৮এম নামের এই প্রমোদতরীতে বিনোদনের জন্য শক্তি যোগাবে ৩ হাজার বর্গফুটের সোলার প্যানেলও।

এমআরডি-১৭/০১/২০১৯

সাথে থাকুন...