স্লোভাকিয়ায় প্রথম নারী প্রেসিডেন্ট হলেন আইনজীবী জুজানা

স্লোভাকিয়ার ইতিহাসে প্রথম নারী প্রেসিডেন্ট হলেন জুজানা কাপুতোভা। শনিবার, ৩০ মার্চ অনুষ্ঠিত প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে সরকারি দলের মারোস সেফকোভিচকে পরাজিত করে প্রেসিডেন্ট হন তিনি।

৪৫ বছর বয়সী জুজানার তেমন কোনও রাজনৈতিক অভিজ্ঞতা নেই। আইনজীবী হিসেবেই তিনি বেশি পরিচিত। তারপরেও তিনি শীর্ষস্থানীয় কূটনীতিক ও ইউরোপীয় কমিশনের ভাইস প্রেসিডেন্ট সরকারি দলের মারোস সেফকোভিচকে পরাজিত করেন।

লিবারাল প্রোগ্রেসিভ স্লোভাকিয়া পার্টির একজন সদস্যা জুজানা। উল্লেখযোগ্য হল, স্লোভাকিয়ার পার্লামেন্টে এর আগে এই দলটির কোনও আসন ছিল না।



১৯৯৩ সালের ১ জানুয়ারি চেকোস্লোভাকিয়া ভেঙে স্লোভাকিয়া প্রথম স্বাধীন রাষ্ট্র হিসাবে আত্মপ্রকাশ করে। স্বাধীনতা লাভের ২৬ বছরের মাথায় প্রথমবারের মতো নারী প্রেসিডেন্ট পেল দেশটি।

জুজানা পেয়েছেন ৫৮ শতাংশ ভোট, সেফকোভিচ পেয়েছেন ৪২ শতাংশ ভোট।

গত বছর একজন সাংবাদিকের খুনের ঘটনা এই নির্বাচনে প্রভাব ফেলেছিল বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা।২০১৮ সালের ফেব্রুয়ারিতে সাংবাদিক জে কুচিয়াককে তার  হবু স্ত্রীর সামনে গুলি করে হত্যা করা হয়। সেই ঘটনাকে প্রচারের হাতিয়ার করেন জুজানা।

৪৫ বছরের জুজানা বিবাহবিচ্ছিন্না, তাঁর দুই সন্তান রয়েছে।

উদারপন্থী জুজানা সমকামীদের অধিকার এবং গর্ভপাতের উপরে স্লোভাকিয়ার নিষেধাজ্ঞার বিরোধিতা করেছিলেন।

আরআ/রাতদিন

লাইক দিয়ে সাথে থাকুন