৯ বছরের আইনি লড়াই শেষে ‘জাত নেই, ধর্ম নেই’ সার্টিফিকেট

প্রতিবেশি দেশ ভারতের চেন্নাইয়ের আইনজীবী স্নেঘা পার্থিবরাজা। ৯ বছর ধরে লড়াই করেছেন, একাই। এই দীর্ঘ সময়ে হোঁচট খেয়েছেন বারবার।

কিন্তু থেমে যাননি স্নেঘা। শেষ দেখার চেষ্টা চালিয়েছেন।

শেষ পর্যন্ত জিতেই গেলেন তিনি। হাতে পেলেন কাঙ্খিত সার্টিফিকেট ‘নো কাস্ট, নো রিলিজিয়ন’। অর্থাৎ স্নেঘার কোনো জাত নেই, নেই ধর্ম। তাঁর নিজের পরিচয় সে নিজেই।

স্নেঘা পার্থিবরাজা ভারতে প্রথম ব্যক্তি যিনি ওই সার্টিফিকেট পেয়েছেন। তিরুপাত্তুরের তহশিললদার স্নেঘাকে সার্টিফিকেট প্রদান করেছেন বলে কলকাতার এইসময় ও নিউজএইটিনের এক খবরে জানিয়েছে।

তবে এর আগে তাঁকে ঘুরতে হয়েছে দেশটির বিভিন্ন দপ্তর থেকে দপ্তরে। একাধিক আদালতেও যেতে হয়েছে তাঁকে। এরপর আদালতের এক রায়েই তিনি পেয়ে যান সেই সার্টিফিকেট।

 ‘আইনজীবীর পরিবারে বড় হয়েছি। আমরা জাতহীন, ধর্মহীন মানুষের জন্য লড়েছি৷ আর নিজেই নিজের লড়াই চালিয়েছি ৯ বছর। এরপর পেয়েছি নো কাস্ট নো রিলিজিয়ন সার্টিফিকেট’ বলেন আইনজীবী স্নেঘা পার্থিবরাজা।

স্নেঘা বলেছেন, সবারই উচিত জন্মের পর তাঁদের শিশুদের জাত-ধর্মের উর্দ্ধে রাখা। এই জাতপাতের কারণেই আর্থিকভাবে পিছিয়ে থাকা মানুষ তাদের প্রয়োজনীয় সুবিধাটুকু পাননা।

এইচএ/রাতদিন

লাইক দিয়ে সাথে থাকুন