হাতীবান্ধায় সব প্রার্থীই আ.লীগের, এক মনোনীতের বিপক্ষে ৫ ‘বিদ্রোহী’

লালমনিরহাটের পাঁচ উপজেলার মধ্যে একটি উপজেলা বাদে চেয়ারম্যান পদে আ.লীগের একাধিক প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।  হাতীবান্ধায় সর্বাধিক প্রার্থী নেমেছেন ভোটের মাঠে। শুধু পাটগ্রামে কোনো বিদ্রোহী নেই দলটির।

আ.লীগের দলীয় মনোনয়ন বঞ্চিত হয়ে এসব প্রার্থী স্বতন্ত্র হিসেবে সোমবার, ১১ ফেব্রুয়ারি মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। তবে তাদের স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নয়, তৃণমূল নেতাকর্মীরা দেখছেন ‘বিদ্রোহী’ প্রার্থী হিসেবে। উল্লেখযোগ্য সংখ্যক বিদ্রোহী প্রার্থী হাতীবান্ধায়।

লালমনিরহাট সদর : লালমনিরহাট সদর উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন আ.লীগ মনোনীত প্রার্থী নজরুল হক পাটোয়ারী ভোলা। তবে তাঁর পাশাপাশি মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন কামরুজ্জামান সুজন। তিনি আ.লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত বলে জানা গেছে।

আদিতমারী : এ উপজেলায় মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন আ.লীগ মনোনীত প্রার্থী রফিকুল আলম। সেখানে উপজেলা আ.লীগের সভাপতি শওকত আলীর ভাতিজা ইমরুল কায়েস ফারুক মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। ফারুক আ.লীগের মনোনয়ন বঞ্চিত হয়ে তার লোকজন নিয়ে গত রোববার দলীয় মনোনয়ন পাওয়া প্রার্থী রফিকুলের নেতাকর্মীদের সাথে সংঘর্ষে জড়িয়েছিলেন।

কালীগঞ্জ : উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন মাহাবুবুজ্জামান আহমেদ। তিনি রিটার্নিং কর্তকর্তার কাছে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। তবে দলীয় মনোনয়ন না পেয়ে ‘বিদ্রোহী’ হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন উপজেলা আ.লীগের যুগ্ম সম্পাদক মিজানুর রহমান মিজু ও জেলা আ.লীগের সহসভাপতি তাহির তাহু।

হাতীবান্ধা : এ উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে যারা মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন তাদের সকলেই আ.লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত। হাতীবান্ধায় দলীয় মনোনয়ন দেয়া হয়েছে লিয়াকত হোসেন বাচ্চুকে। অথচ তিনি ছাড়াও আরো পাঁচ প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। যারা আ.লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত।

তাঁরা হলেন উপজেলা আ.লীগের সভাপতি (ভারপ্রাপ্ত) বদিউজ্জামান ভেলু, জেলা আ.লীগের যুগ্ম সম্পাদক সরওয়ার হায়াত খান, উপজেলা আ.লীগের যুগ্ম সম্পাদক আলমগীর হোসেন রন্টু, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মশিউর রহমান মামুন এবং সম্প্রতি আ.লীগে যোগ দেয়া এমজি মোস্তফা।

পাটগ্রাম : পাটগ্রামে আ.লীগের প্রার্থী রুহুল আমিন বাবুল দলের একক প্রার্থী হিসাবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। তবে স্বতন্ত্র হিসেবে আ.লীগ থেকে বহিস্কৃত ওয়াজেদুল ইসলাম শাহীন মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। তাদের বাইরে এ উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আর কেউ মনোনয়নপত্র দাখিল করেননি।

এমএইচ/রাতদিন

লাইক দিয়ে সাথে থাকুন